Breaking News

প্রচ্ছদরাজনীতিদিল্লিতে চলমান সহিংসতায় বিএনপির উদ্বেগ দিল্লিতে চলমান সহিংসতায় বিএনপির উদ্বেগ

ভারতের দিল্লিতে চলমান সহিংসতায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বিএনপি। বৃহৎ দেশ হিসেবে শান্তি ও সম্প্রীতি ফিরিয়ে আনতে ভারত সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে বিএনপি।

বৃহস্পতিবার বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে দিল্লির পরিস্থিতিতে এ উদ্বেগ জানানো হয়।

বিবৃতিতে রিজভী বলেন, বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন (সিএএ) পাসের ভয়াবহ প্রতিক্রিয়া এই উপমহাদেশ তথা এ অঞ্চলের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির জন্য হুমকি হয়ে উঠবে। এই মর্মে ইতিপূর্বেই বিএনপির পক্ষ থেকে উদ্বেগ জানিয়ে বিবৃতি প্রদান করা হয়েছিল। যে বিবৃতিতে হুঁশিয়ার করে বলা হয়েছিল, বহুত্ববাদের আদর্শ থেকে যে কোনো বিচ্যুতি সব ধর্মের মানুষের সমান নিরাপত্তা নিশ্চিতের পথে একটি অনিবার্য বাধা। চলমান দিল্লির সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা তা আবার সুস্পষ্ট উদাহরণ হিসেবে প্রমাণ করল।

বিবৃতিতে রিজভী আরও বলেন, গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদে জানা গেছে সম্প্রতি ভারত সরকার কর্তৃক পাসকৃত বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন (সিএএ)-এর পক্ষ ও বিপক্ষ গোষ্ঠীর মধ্যে যে বিরোধ তৈরি হয়েছিল- তা ইতিমধ্যেই সাম্প্রদায়িক সহিংসতায় রূপ নিয়েছে। সহিংসতায় নিহত ও আহতের সংখ্যা আশংকাজনকভাবে বাড়ছে। বিএনপি গভীর দুঃখ ও উদ্বেগের সঙ্গে লক্ষ্য করছে যে, নিহত ও আহতদের মধ্যে মুসলমান ও হিন্দু উভয় ধর্মীয় সম্প্রদায়ের ভারতীয়রাই আছেন।

তিনি বলেন, এ অঞ্চলের শান্তি ও সম্প্রীতি প্রতিষ্ঠায় বাংলাদেশ বরাবরই উদ্যমী। ভারতের প্রতিবেশী দেশের নাগরিকদের প্রতিনিধিত্বশীল দল হিসেবে বিএনপি তাই সব সময়ই ভারত রাষ্ট্র ও জনগণের শান্তি, স্থিতিশীলতা ও স্বাভাবিক পরিবেশ কামনা করে। বিএনপি বিশ্বাস করে, ভারতের বর্তমান নির্বাচিত সরকার তার দেশের সংবিধানের অন্তর্নিহিত চেতনানুযায়ী ধর্ম, বর্ণ, নির্বিশেষে সব নাগরিকের মৌলিক অধিকার ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করার মাধ্যমেই চলমান সংকটের সমাধান করবে। এ অঞ্চলের বৃহৎ দেশ হিসেবে এ অঞ্চলের শান্তি, সম্প্রীতি, উন্নয়ন, নিরাপত্তা, স্থিতিশীলতা ও স্বাভাবিক পরিবেশ ফিরিয়ে আনার লক্ষ্যে ভারত সরকার যথাযথ ভূমিকা গ্রহণ করবে বলেও বিএনপি প্রত্যাশা করে।

Check Also

লাকসামে ছাত্রশিবিরের নেতাকর্মীদের উপর আওয়ামী সন্ত্রাসী হামলা ও পুলিশের মিথ্যা মামলা এবং গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ

কুমিল্লা লাকসামে শিবির-জামায়াত সমর্থিত লোকজনের ব্যবসা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, বাড়ি-ঘরে ব্যাপক ভাংচুর, লুটপাট ও অগ্নিসংযোগের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *