Breaking News

তরুণদের উদ্দেশে আজহারীর আবেগঘন ফেসবুক স্ট্যাটাস

সাম্প্রতিককালে দেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় ইসলামী বক্তা ড. মিজানুর রহমান আজহারী। তার সুমধুর কণ্ঠের জাদুতে বুঁদ হয়ে আছেন শ্রোতারা। বিশেষ করে ইংরেজি শব্দ উচ্চারণ আর সমসাময়িক বিষয় নিয়ে তার উপস্থাপিত বক্তব্য ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের হৃদয় কেড়েছে। এবার সেই তরুণ সমাজের উদ্দেশে নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক অ্যাকাউন্টে এক আবেগঘন স্ট্যাটাস দিয়েছেন মিজানুর রহমান আজহারী।

স্ট্যাটাসটি ভাইরাল হয়ে গেছে। তার এই স্ট্যাটাসটিতে একদিনেই লাইক পড়েছে ১ লাখ ১৮ হাজার, কমেন্ট ১২ হাজার এবং শেয়ার সাড়ে ৮ হাজার। শুক্রবার (১৭ জানুয়ারি) রাতে দেয়া ড. মিজানুর রহমান আজহারীর সেই স্ট্যাটাসটি পাঠকদের জন্য হুবহু তুলে ধরা হলো–‘এ দেশের যুবকদের গায়ে আল কোরআনের বাতাস লেগেছে। ওদের হৃদয়ে লেগেছে কালামে পাকের হিমেল ছোঁয়া।

তাই তো পঙ্গপালের মতো ওরা ছুটে আসছে আল কোরআনের মাহফিলগুলোতে। আমরা কি পারব ওদেরকে ধরে রাখতে? বেঁধে রাখতে হেরার আলোর সুতো দিয়ে? নাকি আমাদের কাঁদা ছোড়াছুড়ি আর নোংরামিতে ওরা মুখ ফিরিয়ে নেবে। আর গা ভাসাবে অপসংস্কৃতির গড্ডালিকা প্রবাহে? হে আরশের মালিক, আমাদের দুর্বলতা ও ব্যর্থতার কারণে সম্ভাবনার এ দ্বার যেন রুদ্ধ না হয়। আমরা যেন হেরে না যাই। শেষ পর্যন্ত যেন লড়ে যেতে পারি তোমার কোরআনের জন্য।’

এ স্ট্যাটাসটি লেখার আগে ফরিদপুরের শ্যামসুন্দরপুর জামিয়া আরাবিয়া ফরিদিয়া কওমি মাদ্রাসা ও এতিমখানায় ইসলামী মহাসম্মেলনে বক্তব্য রাখেন আজহারী। এদিন কনকনে শীত উপেক্ষা করে তার ওয়াজ শুনেছেন ফরিদপুরের লাখো মানুষ। শুক্রবার (১৭ জানুয়ারি) রাত ৯টায় মঞ্চে ওঠেন আজহারী। ৯টা ৫ মিনিট থেকে রাত ১০টা ৫৫ মিনিট পর্যন্ত প্রায় ২ ঘণ্টা বক্তব্য দেন তিনি।

হজরত মুহম্মদ (সা.) ও সাহাবি হজরত ওমর ফারুকের জীবনীসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা করেন আজহারী। ধর্মপ্রাণ লাখো মুসল্লি মুগ্ধ হয়ে তার ওয়াজ শোনেন। এর আগে বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে হেলিকপ্টারে শ্যামসুন্দরপুরে পৌঁছান মিজানুর রহমান আজহারী।purboposchim

Check Also

Amnesty and HRW urge Bangladesh to immediate release Mir Ahmad, Amaan Azmi

Two human rights organizations – Amnesty International and Human Rights Watch – have urged Bangladesh …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *